ব্রিটেনে রেস্টুরেন্ট ব্যবসায়ীদের জন্য সুখবর: ৫% ভ্যাট, চাকুরী রক্ষায় সরকারের বিশেষ বরাদ্ধ

মতিয়ার চৌধুরী,লন্ডনঃ ব্রিটিশ অর্থনীতিকে চাঙ্গা করতে  বিশেষ পরিকল্পনা গ্রহন করেছেন চ্যান্সেলর ঋষি সুনাক। তার এই নতুন পরিকল্পনায় বরাদ্ধ পাচ্ছে হসপিটালিটি সেক্টর।

এর ফলে ব্রিটেনের রেস্টুরেন্ট সেক্টর আবারো পুনরুজ্জীবিত হবে বলে আশা করা যাচ্ছে।নতুন এই পরিকল্পানার আওতায় হসপিটালিটি খাতে ভ্যাট কর্তন এবং বেকারত্ব গোছাতে ৩০ বিলিয়ন পাউন্ড বরাদ্ধের  ঘোষনা দিয়েছেন চ্যান্সেলর ।

হাউজ অব কমন্সে আজ বুধবার নতুন পরিকল্পনা উপস্থাপন করতে গিয়ে  চ্যান্সেলর বলেন, অক্টোবরে ফারলো প্রকল্পটি বন্ধ হয়ে যাওয়ার পর যে সব ব্যবসা প্রতিষ্ঠান তিন মাস তাদের কর্মীদের কাজে রাখবে, প্রত্যেক কর্মীর জন্য সরকার এসব ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে এক হাজার পাউন্ড বোনাস প্রদান করবে ।

এদিকে করোনা মহামারির এই সময়ে ব্রিটেনের কারী শিল্প অত্যন্ত সংকটময় সময় পার করছে। বাংলাদেশ ক্যাটারার্স অ্যাসোসিয়েশন ইউকে করোনার অত্যন্ত কঠিন সময়ে ব্রিটেনের কারী শিল্পকে বাচিয়ে রাখতে মূল্য সংযোজন কর ২০ শতাংশের স্থলে ৫ শতাংশ করার বিসিএর দাবী গৃহীত হওয়ায়, চ্যান্সেলরকে সাধুবাদ জানিয়েছেন সংগঠনটির নেৃতবৃন্দ।ঋষি সোনাক বলেন আগামী ১৫ জুলাই থেকে আগামী বছরের ১২ জানুরীরির মধ্যে ভ্যাট কমিয়ে ১৫% থেকে ৫% করা হয়েছে। আগস্ট মাসের প্রতি সোমবার থেকে বুধবার পর্যন্ত ক্যাফে, রেস্তোঁরা, পাবে অর্ধেক মুল্যে খাবার খাওয়া যাবে।

তবে জনপ্রতি ১০ পাউন্ড পর্যন্ত দিবে সরকার। এতে শিশুদেরও অন্তুভুক্ত করা হয়েছে। তবে অ্যালকোহল বা মদ পানে কোন অর্থ দেয়া হবে না। এই ডিসকাউন্ট আন লিমিটেড। মানুষ যত খুশি ততবার বাইরে খাবার গ্রহন করে ডিসকাউন্ট সুবিধা নিতে পারবেন।

সরকার বলছে প্রতি পরিবার গড়ে ২০ পাউন্ড সপ্তাহে বাইরের খাবার গ্রহন করে থাকেন। এই হিসেবে একটি পরিবারের ৪ সদস্যের যদি বাইরের খাবার বিল ৮০ পাউন্ড হয় তারা ৪০ পাউন্ড ডিসকাউন্ট পাবেন।ব্যবসায়ীরা ডিসকাউন্টে খাবারের অর্থ দাবী করার ৫ কর্ম দিবসের মধ্যে একাউন্টে পেয়ে যাবেন সরকারের পক্ষ থেকে।

হসপিটালিটি ইন্ড্রাটির ১.৮ মিলিয়ন মানুষের চাকুরী রক্ষায় সরকার এই উদ্যোগ গ্রহন করেছে বলে জানানো হয়েছে। এদিকে ভ্যাট মওকুফের সুবিধা পাবে রেস্তোঁরা, ক্যাফে, পাব, হোটেল, বিএন্ডকিউ, কেরাবিয়ান সাইট, সিনেমা, থিমস পার্ক এবং চিডিয়াখানা।

অন্যদিকে আবাসন শিল্প রক্ষায় বাড়ী ঘর ক্রয় করতে ৫শ হাজার পর্যন্ত স্ট্যাম্প ডিউটি মওকুপ করা হয়েছে। বলে সাড়ে ৪হাজার পাউন্ড পর্যন্ত স্ট্যাপ ডিউটি বা শুল্ক দিতে হবে না ক্রেতাদের। এই সুযোগ থাকবে আগামী বছরের ৩১ মার্চ পর্যন্ত। ওয়ার্ক এন্ড পেনশন সেক্টরে মিলিয়ন মিলিয়ন মানুষকে সেবা দিতে নতুন কর্মসংস্থানের জন্য ১.২ বিলিয়ন পাউন্ড বরাদ্ধ দেয়া হয়েছে।

ইঞ্জিনিয়ারিং, নির্মান এবং স্যোশাল কেয়ার সার্ভিসে নতুনদের কাজে প্রশিক্ষন দিতে ফার্মগুলোকে ১হাজার পাউন্ড করে অর্থ সহায়তা দিবে সরকার। কারী শিল্পের প্রতিনিধিত্বকারী সংগঠন বিসিএ গত মার্চ মাস থেকে সরকারের জরুরী ব্যাবস্থাপনার বিশেষ প্যাকেজের জন্য সরকারকে ধন্যবাদ জানিয়ে আসছিল । ব্রিটেনের বাণিজ্যিক খাতে কারী ইন্ড্রাষ্টির অবস্থান ষষ্ঠ এবং জাতীয় অর্থনীতিতে বাৎসরিক ৪.২ বিলিয়ন এর বেশী রাজস্ব আয়ের অবদান রাখছে এই শিল্প ।

এখানে উল্লেখ্য যে ব্রিটেনের কারী সেক্টরের নেতৃত্ব দিচ্ছে ব্রিটিশ বাংলাদেশীরা, সরকারের নতুন এই পরিকল্পনায় উপকৃত হবে সব চাইতে বেশী, ব্রিটিশ বাংলাদেশী কমউনিাটি, বৃটেনে রেষ্টুরেন্ট সেক্টরে কাজ করে একলক্ষেরও বেশী ব্রিটিশ বাঙ্গালী।সগম্র বৃটেনে বাঙ্গালী মালিকানাধীন ১২ জাজারেরও বেশী রেষ্টুরেন্ট টেকওয়ে রয়েছে। যা ইন্ডিয়ান রেষ্টুরেন্ট হিসেবে পরিচিত। আর রেষ্টুরেন্ট ব্যবসায়ীদের সংগঠন রয়েছে ৩টি। বিসিএ,বিবিসিএ, ও বাংলাদেশী রেষ্টুরেটারস।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *