নবীনগরে নিরাপত্তা চেয়ে জিডি করা সাংবাদিক বিপাকে!!!

সঞ্জয় শীল, ব্রাহ্মণবাড়িয়া : ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগরে হামলার প্রেক্ষিতে নিরাপত্তা চেয়ে থানায় জিডি করা দৈনিক কালের কন্ঠের নবীনগর প্রতিনিধি ও সাবেক দৈনিক প্রথম আলোর প্রতিনিধি সাংবাদিক গৌরাঙ্গ দেবনাথ অপু পড়েছেন বিপাকে।
এ যেন উল্টো বিপদ!
গত ২৫/০৪/২১ তারিখ দিবাগত রাত আনুমানিক  ১০.৩০ মিনিটে ক্ষমতাসীন  উপজেলা আওয়ামী লীগের মুক্তিযুদ্ধা বিষয়ক সম্পাদক নজরুল ইসলাম  ওরফে নজু মিয়া বাহিনীর লোক হিসেবে পরিচিত মাঝিকাড়া গ্রামের ১০-১২ জনের একটি দল সাংবাদিক গৌরাঙ্গ দেবনাথ অপুর বাড়িতে হামলা করে।
এ সময় তারা সাংবাদিক গৌরাঙ্গ দেবনাথ অপুর ভাইয়ের দোকানে ঢুকে হুমকি দেয়,  তাদের বাড়িতে ইট-পাথর ছুঁড়ে হামলাসহ হত্যার হুমকি দেয়।
তারা গৌরাঙ্গ দেবনাথ অপুকে উদ্দেশ্য করে চিৎকার করে বলতে থাকেন, এমপির ( এবাদুল করিম বুলবুল,  ব্রাহ্মণবাড়িয়া- ৫, নবীনগর) বিরুদ্ধে আর একটা কতা লিকলে তোর হাত-পা কেটে ফেলা হবে। যা সিসি টিভি ফুটেজে স্পট উঠে এসেছে।
উল্লেখ্য, গত ২৪/০৪/২১ তারিখ সুমন উদ্দিন নামে স্বেচ্ছাসেবক লীগের নেতা দাবিকারি নজু মিয়ার ভাগ্নে প্রকাশ্যে সাংবাদিক গৌরাঙ্গ দেবনাথ অপুর বিরুদ্ধে  সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে স্যাস্টাস দেয়।
পরদিন সকালে ( ২৬/০৪/২১) সাংবাদিক গৌরাঙ্গ দেবনাথ অপু বাদী হয়ে সুমন ও অজ্ঞাতদের বিরুদ্ধে থানায় জিডি করেন।
থানায় জিডি করার পর থেকে একের পর এক বিপাকে পড়ছেন তিনি।
গত ২৯/০৪/২১ তারিখ পলাতক সুমন উদ্দিনের স্ত্রী ও তার মা সহ ১৫-২০  জনের একদল নারীকে নিয়ে সাংবাদিক গৌরাঙ্গ দেবনাথ অপুর বিরুদ্ধে সুমন উদ্দিনকে গুমের অভিযোগ এনে ঝাড়ু ও জুতা মিছিল করে।
তাছাড়া ০২/০৫/২১ তারিখ নজু মিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে স্থানীয় উপজেলা চেয়ারম্যান মনিরুজ্জামান মনির ও আওয়ামী লীগ নেতাদের সঙ্গে নিয়ে সাংবাদিক গৌরাঙ্গ দেবনাথ অপু ও তার দ্বারা পরিচালিত সাপ্তাহিক পত্রিকা ” নবীনগরের কথা” এর অন-লাইন ভার্সনের  বিরুদ্ধে অভিযোগ এনে সংবাদ সম্মেলন করেন।
খুঁজ নিয়ে জানা যায়,  সাংবাদিক গৌরাঙ্গ দেবনাথ অপু জিডি করার পর থেকে হামলাকারীরা  পলাতক রয়েছে।
সাংবাদিক গৌরাঙ্গ দেবনাথ অপু বলেন, আমি বিব্রত! আমি নিরাপত্তা চেয়ে জিডি করে একের পর এক বিব্রত পরিস্থিতির  শিকার হচ্ছি। দীর্ঘ ২৬ বছর ধরে সাংবাদিকতা করতে গিয়ে এই প্রথম এমন বিরুপ পরিস্থিতির শিকার হয়েছি। আমি ও আমার পরিবারের নিরাপত্তা নিয়ে এখন আরো বেশি হুমকির মুখে। দেশের ও মানুষের কল্যানে সংবাদ সংগ্রহ করছি। আমাকে নিরাপত্তা কে দিবে!?
তিনি আরো বলেন, শুধু নবীনগরেই নয় বাংলাদেশের যেখানেই সাংবাদিকগন হামলা, হুমকি ও নির্যাতনের শিকার হয়েছেন আমি বলিষ্ঠ কন্ঠে সাংবাদিক ভাইদের হয়ে, একজন সংবাদ কর্মী হয়ে তার প্রতিবাদ করেছি। কিন্তু হলুদ সাংবাদিকতা আর ক্ষমতাসীন মহলের কাছে সবাই যেন নুয়ে পড়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *