যুক্তরাজ্য প্রবাসী সাংবাদিক কিবরিয়া ইনাতগঞ্জ ইউপি নির্বাচনে আ’লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী

মতিয়ার চৌধুরী,লন্ডন: যুক্তরাজ্য প্রবাসী সাংবাদিক ও একাত্তরের ঘাতক-দালাল নির্মুল কমিটির সদস্য  মোহাম্মদ গোলাম কিবরিয়া ইনাতগঞ্জ ইউপি নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী। ৩নং ইনাতগঞ্জ ইউনিয়ন ছাত্রলীগের প্রতিষ্ঠা সহ-সভাপতি, ইনাতগঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয় ও মোস্তফাপুর মাদরাসার সাবেক শিক্ষক মোহাম্মদ গোলাম কিবরিয়া ইনাতগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদের আসন্ন নির্বাচনে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী।

মোহাম্মদ গোলাম কিবরিয়া ইনাতগঞ্জ ইউনিয়ন শাখা ছাত্রলীগের প্রতিষ্ঠাতা সহ-সভাপতি হিসেবে ১৯৯৩ সালে আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে সম্পৃক্ত হন। এরপর ইনাতগঞ্জ যুবলীগ ও আওয়ামী লীগের বিভিন্ন কর্মকাণ্ডে সক্রিয় অংশ নেন। চারদলীয় জোটের শাসনকালীন সময়েও তিনি এলাকার যৌক্তিক দাবি দাওয়া নিয়ে আন্দোলন সংগ্রামে সব সময় নেতাকর্মীদের পাশে থেকে উৎসাহ উদ্দীপনা দিয়েছেন, সক্রিয় অংশ গ্রহণ করেছেন।

তিনি যুক্তরাজ্যে সাংবাদিকতার পাশাপাশি বিভিন্ন সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠনের সাথে যুক্ত থেকে প্রবাসে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষে বিভিন্ন আন্দোলন সংগ্রামে নিয়োজিত রয়েছেন। তিনি যুক্তরাজ্য ঘাতক দালাল নির্মুল কমিটির সদস্য। পূর্ব লন্ডনের আলতাব আলী পার্কে গণজাগরণ মঞ্চের উদ্যোগে একাত্তরের ঘাতকদের ফাঁসির দাবিতে গঠিত আন্দোলনে তিনি প্রত্যক্ষ ভাবে জড়িত ছিলেন। কাজ করেছেন লন্ডনের মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের সব ধরনের কমিটির সাথে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে।

২০১০ সাল থেকে তিনি যুক্তরাজ্যে বসবাস করলেও যে কোন ধরনের প্রয়োজনে তিনি ইনাতগঞ্জ আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ, কৃষক লীগসহ বিভিন্ন অঙ্গ সংগঠনের পাশে থেকে এলাকার সার্বিক উন্নয়নের ক্ষেত্রে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপে সামিল থেকেছেন। তিনি এখনও আওয়ামী লীগ পরিবারের সদস্য হিসেবে এলাকার মানুষের সুখে দুঃখে পাশে থেকে একটি আদর্শ ইউনিয়ন গড়ার জন্য কাজ করে যাচ্ছেন।

তিনি এলাকার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীদের সুবিধার জন্য শিক্ষক অভিভাবকদের সাথে সম্পৃক্ত থেকে বিভিন্ন কল্যানমূলক কাজে অংশ নিচ্ছেন। এলাকার দরিদ্র ও অসহায় মানুষের জন্য তিনি গোপনে ও প্রকাশ্যে সব সময় সহযোগিতার হাত বাড়িয়েছেন। করোনাকালীন সময়ে তিনি ইনাতগঞ্জ এলাকার চিকিৎসকদের নিরাপত্তার জন্য নিরাপত্তা সরঞ্জাম সরবরাহ করেছেন।

আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে মোহাম্মদ গোলাম কিবরিয়া বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করার প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন।

তিনি জানান, দল যদি তাঁকে মনোনয়ন দেয় তাহলে একটি উন্নত ও আদর্শ ইউনিয়ন গড়ার জন্য তিনি সব ধরনের কর্মকাণ্ড পরিচালনা করবেন। তিনি জানান, সদিচ্ছা থাকলে যে কোনো লক্ষ পূরণ অসম্ভব নয়।

তাঁর বিশ্বাস, দলীয় মনোনয়ন পেলে এলাকার মানুষ তাঁকে নির্বাচিত করতে কোনো দ্বিধা করবেন না। সমাজে তাঁর ব্যাপক পরচিতি রয়েছে, রয়েছেন অসংখ্য শুভানুধ্যায়ী, আত্মীয়-স্বজন বন্ধু-বান্ধব এবং রাজনৈতিক পরিচিতি।

প্রসঙ্গতঃ ইনাতগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান প্রয়াত মোতাহের রহমান আক্কা মিয়ার সাথে তিনি পারিবারিক আত্মীয়তার সূত্রে আবদ্ধ। আত্মীয়তা ও পারিবারিক সূত্রে ঘনিষ্ট থাকার সুবাদে তিনি বিগত সময়ে চেয়ারম্যানদের সাথে থেকে অত্র এলাকার মানুষের বিভিন্ন সমস্যা সমাধানে কাজ করেছেন। বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষার গুণগত মানোন্নয়নের জন্য কাজ করেছেন। কাজ করেছেন এলাকার দরিদ্র ও অসহায় মানুষের মুখে হাসি ফুটানোর জন্য বিভিন্ন সহায়তা প্রকল্পে।

মোহাম্মদ গোলাম কিবরিয়ার পরিবারে পূর্ব পুরুষেরা বাংলাদেশের স্বাধীনতার পূর্ব থেকেই বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে ওতোপ্রতো ভাবে সম্পৃক্ত। বর্তমানেও তাঁর পরিবারের সকল সদস্য আওয়ামী রাজনীতির একনিষ্ট কর্মী হিসেবে এলাকায় সুপরিচিত। তাঁর পিতা আলহাজ আহাদুর রহমান (দারাব মিয়) ইনাতগঞ্জ ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ডের সভাপতি হিসেবে দীর্ঘ দিন যাবৎ দায়িত্ব পালন করছেন।

মোহাম্মদ গোলাম কিবরিয়ার বিশ্বাস অতীত অভিজ্ঞতা ও মানুষের সাথে আন্তরিক সম্পর্ক তাঁকে গণ-মানুষের জন্য নিঃস্বার্থ ভাবে কাজ করতে অনুপ্রেরণা যোগাবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *