বানিয়াচংয়ে ইউপি সদস্য খুন

বানিয়াচং (হবিগঞ্জ) প্রতিনিধিঃ হবিগঞ্জের বানিয়াচং উপজেলার পুকড়া ইউনিয়ন পরিষদের ২ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য অরুন দাসের (৬০) মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

পুলিশের ধারণা তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যার পর ফেলে রাখা হয়েছে। এছাড়া তার বাম দিকের চোখও উপড়ে ফেলা হয়েছে।

মঙ্গলবার (১১ ফেব্রুয়ারি) সকালে বাড়ির পার্শ্ববর্তী পুকুর পাড় থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।তিনি পুকড়া গ্রামের বাসিন্দা ছিলেন তিনি।

স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন জানান, সোমবার (১০ ফেব্রুয়ারি) দিনগত রাতে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের একটি উৎসবে যোগ দেওয়ার উদ্দেশে পার্শ্ববর্তী কবিরপুর গ্রামে গিয়ে আর ফিরেননি অরুন। পরদিন মঙ্গলবার সকালে স্থানীয় একটি পুকুর পাড়ে তার মরদেহ পাওয়া যায়। তার বাম চোখটি উপড়ে ফেলা হয়েছে।

কারো সঙ্গে অরুনের শত্রুতা ছিল কি না জানতে চাইলে চেয়ারম্যান বলেন, এ ধরনের কিছু আমার জানা নেই। তবে তিনি এলাকায় চুরি-ডাকাতির বিরুদ্ধে সোচ্চার ছিলেন।

বানিয়াচং সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি) মো. সেলিম মিয়া বলেন, এটি নিঃসন্দেহে একটি হত্যাকাণ্ড। ধারণা করা হচ্ছে শ্বাসরোধ করে হত্যার পর তাকে ফেলে রাখা হয়েছে। এ ব্যাপারে তদন্তে নেমেছে পুলিশ। ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ হবিগঞ্জ আধুনিক জেলা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *